এসিল্যান্ড আহত ছিনতাইকারীর ছুরিকাঘাতে!

বিডি নিউজ২৩: ঢাকার সাভারে ছিনতাইকারীদের ছুরিকাঘাতে পটুয়াখালী জেলার কলাপাড়া উপজেলার সহকারী কমিশনার (ভূমি) মো. আবুবক্কর সিদ্দিকী আহত হয়েছেন। তাকে উদ্ধার করে সাভারের এনাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

 

সোমবার রাত সাড়ে ১১টার দিকে ঢাকা-আরিচা মহাসড়কের সিঅ্যান্ডবি এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

 

সাভারের উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) মো. ইসমাইল হোসেন দ্য ডেইলি স্টারকে এসব তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

 

তিনি জানান, মো. আবুবক্কর সিদ্দিকী সাভারের বিসিএস লাইভস্টক একাডেমিতে চলমান সার্ভে সেটেলমেন্ট কোর্সে প্রশিক্ষণে আছেন।

 

‘সোমবার ঢাকায় তার মাকে দেখে রাতে তিনি প্রশিক্ষণকেন্দ্রে ফিরছিলেন। সিঅ্যান্ডবি বাসস্ট্যান্ডে বাস থেকে নামার পর ছিনতাইকারীরা তার পথরোধ করে,’ বলেন তিনি।

 

ছিনতাইকারীরা তাকে ছুরিকাঘাত করে তার মোবাইল ফোন, টাকাপয়সা নিয়ে যায় বলে জানান তিনি।

 

ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের সঙ্গে আলাপ করে এ বিষয়ে পরবর্তী আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে জানান মো. ইসমাইল হোসেন।

 

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, রক্তাক্ত অবস্থায় সহকারী কমিশনার মো. আবুবক্করকে উদ্ধার করে তারা প্রথমে তাকে প্রশিক্ষণকেন্দ্রে নিয়ে যান। পরে সেখান থেকে তার কয়েকজন সহকর্মী তাকে হাসপাতালে নিয়ে যান।

 

যোগাযোগ করা হলে সাভার এনাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের সিনিয়র মেডিকেল অফিসার (সার্জারি) ডা. উজ্জ্বল আহমেদ দ্য ডেইলি স্টারকে বলেন, ‘আহতের বুক, পেটসহ শরীরের বিভিন্ন স্থানে আমরা ৫টি ছুরিকাঘাতের চিহ্ন পেয়েছি। তার অনেকখানি রক্তক্ষরণ হয়েছে।’

 

যোগাযোগ করলে সাভার মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) দীপক চন্দ্র সাহা দ্য ডেইলি স্টারকে বলেন, ‘এ ঘটনার পর আমাদের একাধিক টিম অভিযান চালাচ্ছে। অপরাধীদের শনাক্ত ও গ্রেপ্তারে আমরা কাজ করছি।’

 

এদিকে স্থানীয় যাত্রী ও অটোরিকশা চালকদের অভিযোগ, সিঅ্যান্ডবি এলাকায় নিয়মিতভাবে ছিনতাই হয়। ঘটনাস্থলের বিপরীত পাশে পুলিশ চেকপোস্ট আছে। এছাড়া হাইওয়ে পুলিশের টহল থাকলেও ছিনতাইয়ের ঘটনা ঘটছে।

 

এ বিষয়ে জানতে চাইলে সাভার হাইওয়ে থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আজিজুল হক ডেইলি স্টারকে বলেন, ‘আমাদের একটি টিম ৮০ কিলোমিটার এলাকায় টহলের দায়িত্বে থাকে। আমাদের লোকবল সংকট আছে। এছাড়া আজকের রাতের ছিনতাইয়ের বিষয়টি আমি জানি না।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *