বাগমারায় জোরপূর্বক বাড়ি ভাংচুর, লুটপাট ও জমি দখলের চেষ্টা

মিজানুর রহমান বাগমারাঃ রাজশাহী বাগমারা উপজেলা ১৫ নং যোগীপাড়া ইউনিয়নের ৬ নং ওয়ার্ড কাতিলা হিন্দুপাড়ায় বাড়ি ভাংচুর, লুটপাট ও হামলার ঘটনা ঘটে। 

 

আজ বুধবার ১৮ অক্টোবর আনুমানিক বেলা ১১ ঘটিকার সময় ফজেল বেগ এর বসতবাড়িতে এই ঘটনা ঘটছে।

 

অভিযোগ সুত্রে জানা যাই, ফজেল বেগ নিজ নামে রেকডি সম্পত্তি দীর্ঘদিন যাবত ভোগদখল ও বসবাস করে আসছিলেন। বর্তমানে জমিতে কালাই কিছু অংশে বসতবাড়ি আছে। বসতবাড়িতে ফজলে বেগ ও তার স্ত্রী বসবাস করেন।

 

হঠাৎ করে আজ সকাল ১১ টাই কাতিলা গ্রামের হিন্দু সম্পাদায়ের শ্রী সুজিত সরকার, শ্রী সুশান্ত সরকার, শ্রী সুধাংস সরকার উভয় পিতা মৃত সন্তোষ কুমার সরকার , জাহাঙ্গীর পিতা মোঃ জব্বার সাং কাতিলা ইয়াদ আলী পিতা মৃত অছির সাং নখোপাড়া সহ অজ্ঞাত ২০/২৫ জন সংঘবদ্ধ হয়ে পূর্বপরিকল্পিত ভাবে ফজলে বেগ এর বসতবাড়িতে গিয়ে হামলা চালায়। হামলা চালিয়ে বাড়ি ভাংচুর স্বর্ণঅলংকার ও গচ্ছিত ২ লক্ষ টাকা লুটপাট করে নিয়ে যায়। এই সময় ফজলে ও তার স্ত্রী বাঁধা দিলে তাদেরও মারধর করে। এই ঘটনায় মোছাঃ আরিফা বিবি বাদি হয়ে বাগমারা থানায় লিখিত অভিযোগ করেন।

 

উল্লেখ্য, এর আগেও গত ১৮/১০/২০২১ ইং তারিখে যোগীপাড়া পুলিশ ফাড়ির ভারপ্রাপ্ত আইসি জাহাঙ্গীর আলম উক্ত সালিশের সভাপতি ও এলাকায় গন্যমান্য ব্যাক্তি বর্গের উপস্থিততে জমির সকল কাগজ পর্যালোচনা করে আলিম বেগ এর পক্ষে রায় প্রদান করেন এবং জমি ভোগদখলের অনুমতি দেন এরপর থেকে সালিশের রায় না মেনে বিভিন্ন সময় হত্যার হুকমি সহ বিভিন্ন ভাবে গরীব অসহায় পরিবার কে হয়রানি করে আসছেন। বর্তমানে ফজলে বেগ এর স্ত্রী বাগমারা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স চিকিৎসা জন্য রয়েছেন।

 

এবিষয়ে জানতে চাইলে যোগীপাড়া পুলিশ তদন্ত কেন্দ্র আইসি কিবরিয়া বলেন,বিষয় টি জানা নেই তদন্ত করে ব্যাবস্থা নেওয়া হবে। 

 

এবিষয়ে জানতে চাইলে বাগমারা থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) রবিউল ইসলাম তদন্ত সাপেক্ষে ব্যাবস্থা গ্রহনের আশ্বাস দেন।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *