ভোটার আইডি কার্ডে বাংলাদেশের বদলে তুরস্ক!

বিডি নিউজ২৩/BD News23: নিজের জন্মস্থানের জায়গায় অন্যান্য দেশের নাম চলে আসছে জাতীয় পরিচয়পত্রে। সম্প্রতি সুনামগঞ্জে যারা জাতীয় পরিচয়পত্র অনলাইন থেকে ডাউনলোড দিচ্ছেন তাদের অধিকাংশের এই সমস্যা দেখা দিচ্ছে। জন্মস্থান সুনামগঞ্জের জায়গায় লেখা তুরস্ক। এমন ঘটনার সম্মুখীন হয়েছেন সুনামগঞ্জের একাধিক ব্যক্তি।

 

এর আগে এমন ঘটনা ঘটে মৌলভীবাজার জেলায়। বিভিন্ন গণমাধ্যম থেকে জানা যায়, সেখানে এক নারীর জাতীয় পরিচয়পত্রে জন্মস্থানের জায়গায় লেখা ছিল ভেনেজুয়েলা।

 

সুনামগঞ্জ পৌর শহরের তেঘরিয়া এলাকার ঝর্ণা বেগম প্রয়োজনীয় সব কাগজ-পত্র নির্বাচন অফিসে জমা দিয়ে নতুন ভোটার হন। ব্যক্তিগত কাজে জাতীয় পরিচয়পত্রের প্রয়োজন হলে অনলাইন থেকে ডাউনলোড করেন নিজের জাতীয় পরিচয়পত্র। ডাউনলোড করে নিজের জন্মস্থান তুরস্ক দেখে হতবাক হয়ে যান তিনি।

 

 

ঝর্ণা বেগমের ভাই মাজহারুল ইসলাম বলেন, প্রয়োজনীয় কাজে আমি, ঝর্ণা আপা ও আরেকজনের জাতীয় পরিচয়পত্র ডাউনলোড করি। অন্যটা ঠিক থাকলেও ঝর্ণা আপার জাতীয় পরিচয়পত্রে জন্মস্থান লেখা আসে তুরস্ক। এখন ভয়ে আছি, এই কার্ডে সব জায়গায় কাজ করবে কি না। করলেও ভুল তথ্য দিয়ে কাজ চালাতে হবে।

 

শুধু ঝর্ণা বেগম নন, দোয়ারাবাজার উপজেলার নজরুল হোসেন সাগর, সদর উপজেলার শাখাইতির জাকুয়ান, তামজিদ আহমেদ, আলমপুরের কয়েকজনসহ এমন সমস্যায় পড়েছেন জেলার একাধিক ব্যক্তি। জন্মস্থানে ভুল থাকার কারণে প্রয়োজনীয় কাজ করতে গিয়ে নানা সমস্যার সম্মুখীন হচ্ছেন।

 

দোয়ারাবাজার উপজেলার নজরুল হোসেন সাগর বলেন, আমার জাতীয় পরিচয়পত্র আগে থেকে ডাউনলোড করা ছিল। কিন্তু ভুলে বাড়িতে রেখে আসি। সুনামগঞ্জে একটি কাজের জন্য আবার ডাউনলোড দিতে গেলে জন্মস্থান তুরস্ক লেখা আসে। পরে আবার সুনামগঞ্জ থেকে দোয়ারাবাজার গিয়ে আগের কার্ড আনতে হয়েছে।

 

সুনামগঞ্জ পৌরশহরের পৌর বিপনীস্থ বরাত কম্পিউটার সেন্টারের মো. ইকবাল খান বলেন, আমার দোকানে ইন্টারনেট থেকে জাতীয় পরিচয়পত্র ডাউনলোড করতে আসা এমন অনেক ব্যক্তি পেয়েছি যাদের জাতীয় পরিচয়পত্রে জন্মস্থান তুরস্ক লেখা। তাদের বেশিরভাগ নতুন ভোটার। নতুন কার্ড পেয়ে এমন ভুল দেখে হতাশ তারা। আমি তাদেরকে নির্বাচন অফিসে যোগাযোগ করার পরামর্শ দিয়েছি।

 

এ ব্যাপারে জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মুরাদ উদ্দিন হাওলাদার জানান, এটা টেকনিক্যালি একটা সমস্যা ছিল। আমাদের কাছে খবর আসার পর ঢাকা নির্বাচন অফিসের অনুবিভাগে যোগাযোগ করে ঠিক করা হয়ে গেছে। যাদের জন্মস্থানে তুরস্ক লেখা ছিল, তারা আবার ডাউনলোড করলে সঠিকভাবে আসবে। দ্বিতীয় বার কপি ডাউনলোড করতে না পারলে আমার অফিসে আসলে বিনামূল্যে দিয়ে দেব।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *