• সোমবার, ১৫ এপ্রিল ২০২৪, ০৫:৫২ অপরাহ্ন
শিরোনাম
রাজশাহীর পুঠিয়ায় পহেলা বৈশাখ-১৪৩১ শুভ বাংলা নববর্ষ উদযাপন রাজশাহীর পুঠিয়ায় বিয়ের দাওয়াত খেতে এসে পানিতে ডুবে শিশুর মৃত্যু ঈদ পূর্ণমিলন এস.এস.সি ১৯৯৯ বনাম ২০০০ প্রীতি ক্রিকেট টুর্ণামেন্ট অনুষ্ঠিত রাজশাহীর পুঠিয়ায় বিধবা নারীর বস্তাবন্দি লাশ উদ্ধার দেশবাসীকে ঈদের শুভেচ্ছা জানালেন এ্যাডঃ জালাল উদ্দীন উজ্জ্বল বাগমারা বাসিকে ঈদুল ফিতরের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন যুবলীগের যুগ্ম আহবায়ক সোহেল রানা বাগমারাবাসীকে পবিত্র ঈদুল ফিতরের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন, এমপি আবুল কালাম আজাদ ম্যানেজার নেজামকে উদ্ধার করে পরিবারের নিকট ফিরিয়ে দিয়েছে র‍্যাব দুই হাতুড়ির দাম ১ লাখ ৮২ হাজার, দুটি পাইপ কাটারের দাম ৯২ লাখ টাকা নেশা থেকে ফেরাতে না পেরে কুড়াল দিয়ে সন্তানকে কুপিয়ে হত্যা

নাটোরের বড়াইগ্রামে পুরুষাঙ্গ কেটে ধর্ষণের হাত থেকে বাঁচলেন এক নারী

সংবাদদাতা:
সংবাদ প্রকাশ: মঙ্গলবার, ৩১ মে, ২০২২
Prothom alo news
নাটোরের বড়াইগ্রামে পুরুষাঙ্গ কেটে ধর্ষণের হাত থেকে বাঁচলেন এক নারী

বিডি নিউজ২৩/BD News23: নাটোরের বড়াইগ্রামে পুরুষাঙ্গ কেটে ধর্ষণের হাত থেকে বাঁচলেন এক নারী। বড়াইগ্রামে পুরুষাঙ্গ কেটে ধর্ষণ থেকে বাঁচলেন নারী! নাটোরের বড়াইগ্রামে ধর্ষণ থেকে বাঁচতে চাঁদ মোহাম্মদ (৫৫) নামে এক ব্যক্তির পুরুষাঙ্গ কেটে দিয়েছেন আম্বিয়া খাতুন (৪০) নামের এক বিধবা নারী।

 

গতকাল সোমবার রাত ১১ টার দিকে উপজেলার বড়াইগ্রাম ইউনিয়নের প্রতাবপুর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। চাঁদ প্রতাবপুর গ্রামের মৃত সোহরাব হোসেনের ছেলে। বিধবা আম্বিয়া উপজেলার প্রতাপপুর গ্রামের মৃত শাহজাহানের স্ত্রী। আহত অবস্থায় ওই আম্বিয়া ও চাঁদ মোহাম্মদকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

স্থানীয় ইউপি সদস্য সাহাবুল ইসলাম বলেন, আম্বিয়া বেগম ও চাঁদ মোহাম্মদ প্রতিবেশী। সোমবার রাতে তাদের চিৎকার চেঁচামেচিতে স্থানীয় লোকজন আম্বিয়ার বাড়িতে গিয়ে রক্তাক্ত অবস্থায় দুইজনকে উদ্ধার করে। পরে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে। সেখানে চাঁদ মোহাম্মদের অবস্থার অবনতি হলে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়।

 

আম্বিয়া বেগম বলেন, আমার স্বামী মারা গেছেন দুই বছর হলো। আমার দুই ছেলে ও এক মেয়ে। এক ছেলে ও মেয়েকে বিয়ে দিয়েছি। তারা সকলেই ঢাকায় থাকে। অনেক আগে থেকে চাঁদ আমাকে বিরক্ত করত। আমি স্থানীয় প্রধানদের অনেকবার বলেছি। সোমবার রাতে আমি প্রাকৃতিক ডাকে ঘরের বাহিরে বের হলে ওৎপেতে থাকা চাঁদ আমাকে ধরে ধর্ষণের চেষ্টা করে। আমি বাধা দিলে আমাকে মারপিট করে। গলায় কামড়িয়ে এবং টিপে ধরে মেরে ফেলার চেষ্টা করে। আমি কোন উপায় না দেখে বঠি দিয়ে তার লিঙ্গ কেটে দিয়েছি।

 

চাঁদ মোহাম্মদ বলেন, আমাকে ফোনে ডেকে নিয়ে যায়। আমি বাড়ি ভিতরে প্রবেশ করার সাথে সাথে জাপটে ধরে আমার লিঙ্গ কেটে দেয়। পরে আমার যন্ত্রণার চিৎকারে প্রতিবেশিরা উদ্ধার করে।

 

বড়াইগ্রাম থানা অফিসার ইনচার্জ আবু সিদ্দিক বলেন, ঘটনাস্থল পরিদর্শন করা হয়েছে। কেউ থানায় লিখিত অভিযোগ করে নাই। অভিযোগ পেলে আইনানুগ ব্যাবস্থা গ্রহন করা হবে।

সংবাদটি শেয়ার করুন


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরো খবর

Recent Comments

No comments to show.