পুঠিয়া থানা পুলিশ কর্তৃক ৭৬২ কেজি ভেজাল গুড় জব্দ, গ্রেফতার ৭

প্রথম আলো

গোপন সংবাদের  ভিত্তিতে  পুঠিয়া থানার এসআই মো: শরিফুল ইসলামের নেতৃত্বে একটি টিম বিশেষ অভিযান পরিচালনা করে।

 

গতকাল (২৭ মে) তারিখ রাত অনুমান ১১ টার সময় পুঠিয়া থানাধীন জিউপাড়া ইউনিয়ন অন্তর্গত ঝলমলিয়া বাজার এলাকায় ভেজাল গুড় তৈরির এক কারখানা হতে ৭৬২ কেজি ভেজাল গুড় ও ভেজালগুড় তৈরির উপকরণ সামগ্রী (চিনি, পাথরের চুন, হাইড্রোজ, ফিটকিরি, ডালডা ও রাসায়নিক পদার্থ) জব্দকরণসহ সাতজনকে আটক করে।

 

আটককৃত ব্যক্তিরা হচ্ছেন: ১। মো: রজব সরদার (২৬), পিতা: মো: মানিক সরদার, সাং : পূর্ব কানাইপাড়া, থানা: পুঠিয়া, ২।মোঃ আলী হোসেন (২৮), পিতা: মৃত মকিম মোল্লা, সাং: আড়ানী দিয়ারপাড়া, ৩। শ্রী সুব্রত সরকার (২৬), পিতা: শ্রী বিশ্বনাথ সরকার, সাং: বাউশা কাচারীপাড়া ৪। মোঃ সজীব আলী (২০), পিতা: মোঃ জলিল শাহ, সাং আড়ানী দিয়ারপাড়া, ৫। মোঃ হ্নদয় আলী (২০), পিতা মোঃ মিলন আহম্মেদ, সাং আড়ানী দিয়ারপাড়া, ৬। মোঃ জয়নাল (৪৫), পিতা মৃত শাহাবাজ, সাং: আড়ানী দিয়ারপাড়া, সর্ব থানা: বাঘা ৭। মোঃ সোহাগ হোসেন (৩০), পিতা: মোঃ লুতফর রহমান, সাং: জিউপাড়া (পান্নাপাড়া), থানা পুঠিয়া, সকলের জেলা রাজশাহী।

 

ঘটনার সাথে জড়িতদের বিরুদ্ধে পুঠিয়া থানায় বিশেষ ক্ষমতা আইনে  মামলা রুজু করা হয়েছে। রাজশাহীর সম্মানিত পুলিশ সুপার জনাব এ বি এম মাসুদ হোসেন, বিপিএম (বার) মহোদয়ের দিকনির্দেশনায় রাজশাহী জেলা পুলিশের খেজুর ও আখের গুড়ের নামে ভেজাল গুড় তৈরির কারখানার বিরুদ্ধে অভিযান অব্যাহত রয়েছে। চলতি ২০২২ সালে  রাজশাহী জেলা পুলিশের বিভিন্ন থানায় ভেজালগুড় জব্দকরণ সংক্রান্তে সর্বমোট ২১ টি মামলা রুজু করে জড়িতদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে। ভবিষ্যতেও অবৈধ মজুদদার, ভেজাল গুড় ও ভেজাল কসমেটিকস কারখানার বিরুদ্ধে রাজশাহী জেলা পুলিশের অভিযান অব্যাহত থাকবে।

 

মো: ইফতে খায়ের আলম, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার, রাজশাহী

সংবাদটি শেয়ার করুন

Related posts

Leave a Comment