থানায় নারীকে দিয়ে বডি ম্যাসাজ, বরখাস্ত পুলিশ কর্মকর্তা

Prothom alo news

বিডি নিউজ২৩/BD News23: তার ছেলে জেলে বন্দি । তাকে মুক্ত করতে থানায় গিয়েছিলেন মা। সেই নারীকে দিয়ে শরীর ম্যাসাজ করিয়েছেন দায়িত্বরত পুলিশ কর্মকর্তা। সম্প্রতি ভারতের বিহার রাজ্যের এ ঘটনার ভিডিও ভাইরাল হয়েছে সোশ্যাল মিডিয়ায়। এ নিয়ে ব্যাপক বিতর্ক সৃষ্টি হওয়ায় ওই কর্মকর্তাকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে।

শুক্রবার (২৯ এপ্রিল) ভারতীয় সংবাদমাধ্যম জি নিউজের প্রতিবেদনে জানা যায়, ঘটনাটি বিহারের সহর্সা জেলার। অভিযুক্ত কর্মকর্তার নাম শশীভূষণ সিনহা। তিনি নৌহাট্টা থানার উপ-পুলিশ পরিদর্শক (এসআই)

ভাইরাল ভিডিওতে দেখা যায়, ঊর্ধ্বাঙ্গ অনাবৃত করে থানায় বসে রয়েছেন শশীভূষণ। তিনি ফোনে কথা বলছেন আর তার শরীরে ম্যাসাজ করে দিচ্ছেন এক নারী। ফোনের কথোপকথনে জানা যায়, ওই সময় এক আইনজীবীর সঙ্গে কথা বলছিলেন অভিযুক্ত পুলিশ কর্মকর্তা। তাকে বলতে শোনা যায়, এরা গরিব, অভাবী… আমি কত পাঠাবো? একটা খামে করে পাঠিয়ে দেবো। দুই নারী তাদের আধার কার্ড নিয়ে আপনার কাছে যাবেন। আমি সোমবার অর্থ পাঠাবো মোবাইলে দেওয়া ঠিকানাটায়। পাপ্পু বাবু, আমি আপনাকে অনুরোধ করছি। আমি ১০ হাজার রুপি দেবো।

এই ঘটনার সময় আরেক নারীকে তাদের সামনে বসে থাকতে দেখা যায়। ধারণা করা হচ্ছে, ফোনে যে দুই নারীর কথা বলছিলেন শশীভূষণ, সম্ভবত এরাই তারা।

ফোনে ওই পুলিশ কর্মকর্তা কোনো আইনজীবীকে অর্থের বিনিময়ে ছেলেটির জামিনের ব্যবস্থাই করতে বলছিলেন। কিন্তু বিপদগ্রস্ত নারীকে দিয়ে শরীর ম্যাসাজ করানোয় স্বাভাবিকভাবেই বিতর্কের মুখে পড়েন তিনি। এর ভিডিও ভাইরাল হলে অভিযুক্ত কর্মকর্তাকে সাময়িক বরখাস্ত করেছেন সংশ্লিষ্ট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা।

এছাড়াও এই ভাইরাল ভিডিওর বিষয় ব্যাপক রকম নিন্দনীয় মন্তব্য করছেন সোশ্যাল নেটওয়ার্ক ব্যবহারকারীরা।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Related posts

Leave a Comment