সিঙ্গাপুরে এক বাংলাদেশীর সার্টিফিকেট জালিয়াতি ৪৫ সপ্তাহ জেল

BD NEWS23 বিডি নিউজ২৩ঃ স্বপ্নের দেশ সিঙ্গাপুর। সিঙ্গাপুরে কাজ করতে যাওয়া প্রবাসী শ্রমিকরা তাদের গায়ের ঘাম ঝরিয়ে রেমিটেন্স পাঠায় তাদের নিজের দেশে। তুলনামূলকভাবে সিঙ্গাপুরের আইন-শৃঙ্খলা পরিস্থিতি খুবই ভালো। অন্যায় করে সিঙ্গাপুরে পার পাওয়া যায় না।

সিঙ্গাপুরের যেমন বাংলাদেশীদের রয়েছে অবদান। তেমনি কিছু প্রবাসী শ্রমিকদের জন্য বাংলাদেশের মান কিছুটা নষ্টও হয়। এর আগেও বাংলাদেশী কিছু যুবক বিপথে গিয়েছিলেন এবার নতুন করে আরও একজন যুবক সার্টিফিকেট জালিয়াতির কারণে সে দেশের পুলিশের হাতে আটক রয়েছেন। হয়েছে সাজাও।

ফর্কলিফট সার্টিফিকেট জালিয়াতির কারনে এক বাংলাদেশির ৪৫ সপ্তাহের জেল। সিঙ্গাপুরে কন্সট্রাকশন সাইটে কর্মরত এক বাংলাদেশি মামুন আল নামে ( ৩৫ বছর) দ্রুতগিতিতে  ফর্কলিফট দিয়ে মালামাল লিফট করার সময়, এক লরি ড্রাইভারকে মারাত্বক আহত করে।

দুর্ঘটনার পর প্রশিক্ষনের একটি সার্টিফিকেট  জমা দেয়, তদন্ত করে দেখা যায় জমা দেওয়া সার্টিফিকেটটি বৈধ নয়। মামুন আল ফর্কলিফটের চালানোর জন্য কোন প্রশিক্ষণ নেয়নি।

ঘটনাটি ঘটেছিলো ১৮ ই জানুয়ারি ২০১৮ সালে। মামুন আল ছিলেন কোম্পানির একজন সেফটি সুপারভাইজার। জালিয়াতি ও অন্যজনকে মারাত্বক আহত করার কারনে মামুন আলকে ৪৫ সপ্তাহের জেল দেওয়া।

এরকম অপরাধের জন্য দুই বছরের জেল ও দুই লক্ষ ডলার জরিমানা এবং উভয়ই দন্ডে দন্ডিত। সার্টিফিকেট জালিয়াতির জন্য ৬ মাসের জেল ও ৫ হাজার ডলার জরিমানা এবং  উভয়ই।
সুত্র, ছবি – স্ট্রেইট টাইমস

বিডি নিউজ২৩ এর পক্ষ থেকে করোনা সাবধানতাঃ এই ভাইরাস থেকে একটু রক্ষা পেতে চাইলে অবশ্যই জনসমাগম এড়িয়ে চলতে হবে। মুখে মাস্ক ভালোভাবে ব্যবহার করার কোনো বিকল্প পথ নেই। নিজে সতর্ক থাকতে হবে অন্যকেও সতর্ক ভাবে রাখতে হবে। যতোটুকু সম্ভব হয় বাহিরে যাওয়া একদম কমিয়ে দিতে হবে। বাহিরে না গেলেই সবচেয়ে ভালো। BD NEWS23 বিডি নিউজ২৩

সিঙ্গাপুরে এক বাংলাদেশীর সার্টিফিকেট জালিয়াতি ৪৫ সপ্তাহ জেল
সিঙ্গাপুরে এক বাংলাদেশীর সার্টিফিকেট জালিয়াতি ৪৫ সপ্তাহ জেল
শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *